২০১৮-১১-১৮

মঙ্গলবার, ১১ ডিসেম্বর ২০১৮

খাশোগি হত্যায় সৌদি যুবরাজের সংশ্লিষ্টতা নিয়ে মুখ খুললেন ট্রাম্প

OURISLAM24.COM
news-image

আওয়ার ইসলাম: সৌদি রাজতন্ত্রবিরোধী সাংবাদিক জামাল খাশোগির হত্যাকাণ্ডে দেশটির যুবরাজ মোহাম্মাদ বিন সালমানের সংশ্লিষ্টতা রয়েছে কিনা তা নিয়ে কথা বলেছেন মার্কিন প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্প।

তিনি বলেছেন, ‘খাশোগি হত্যাকাণ্ডে মোহাম্মাদ বিন সালমান জড়িত, এমন সিদ্ধান্তে পৌঁছার এখনও সময় আসেনি। আমরা এখনো কাউকে দায়ী করছি না। এটা তাড়াহুড়ো হয়ে যায়।’

স্থানীয় সময় শনিবার এক প্রেস ব্রিফিংয়ে এসব কথা বলেন ট্রাম্প।

তিনি আরও বলেন, ‘যা ঘটেছে তা ভয়ঙ্কর, একজন সাংবাদিককে নৃশংসভাবে হত্যা করা হয়েছে। আমরা সার্বিক চিত্র নিয়ে ভাবছি, কে এর পেছনে কলকাঠি নেড়েছে, কে খুন করেছে, আমরা ভাবছি।’

ট্রাম্প বলেন, ‘সিআইএ প্রয়োজনীয় তথ্য-উপাত্ত বিশ্লেষণ করে যে সিদ্ধান্তে উপনীত হয়েছে সে সংক্রান্ত কাগজপত্র এখনও আমার হাতে এসে পৌঁছায়নি।’ তবে সিআইএ-এর মূল্যায়ন প্রত্যাখ্যান করেননি ট্রাম্প।

তিনি বলেন, ‘আগামী মঙ্গলবার পূর্ণ প্রতিবেদন দেওয়া হবে, যাতে হত্যাকাণ্ডের পুরো চিত্র থাকবে।’

এর আগে মার্কিন স্টেট ডিপার্টমেন্ট থেকে পাঠানো এক বিবৃতিতে বলা হয়, খাশোগি হত্যা নিয়ে এখনও চূড়ান্ত উপসংহার টানেনি মার্কিন সরকার। হত্যাকাণ্ড নিয়ে অনেক অমীমাংসিত জিজ্ঞাসা রয়ে গেছে। স্টেট ডিপার্টমেন্ট সকল প্রাসঙ্গিক তথ্য-উপাত্ত খতিয়ে দেখছে।’

গতকাল ওয়াশিংটন পোস্টের এক খবরে দাবি করা হয়, সিআইএ তদন্ত ও দলিল-প্রমাণের ভিত্তিতে এই সিদ্ধান্ত জানিয়েছে যে, সৌদি যুবরাজ মোহাম্মাদ বিন সালমান নিজে জামাল খাশোগিকে হত্যা করার নির্দেশ দিয়েছেন।

খাশোগি গত ২ অক্টোবর তুরস্কের ইস্তাম্বুলে সৌদি কনস্যুলেটে ব্যক্তিগত কাগজপত্র সংগ্রহ করতে গিয়ে নৃশংসভাবে নিহত হন। একটি সৌদি ঘাতক দল তাকে হত্যা করে তার দেহ টুকরো টুকরো করে ফেলে।

ওয়াশিংটন পোস্টের প্রতিবেদন প্রত্যাখ্যান প্রিন্স সালমানের