২০১৮-১০-৩১

বুধবার, ২১ নভেম্বর ২০১৮

গণমাধ্যমে প্রথম সাক্ষাৎকারেই সবার মন জয় করেছেন বুশরা বিবি

OURISLAM24.COM
news-image

আবদুল্লাহ তামিম
আওয়ার ইসলাম

প্রথমবারের মত গণমাধ্যমে সাক্ষাৎকার দিয়ে প্রশংসা কুড়িয়েছেন পাকিস্তানের বর্তমান ফার্স্ট লেডি ইমরান খানের স্ত্রী বুশরা বিবি।

গত দুই মাস আগে পাকিস্তানের ২২ তম প্রধানমন্ত্রী হিসেবে শপথ গ্রহণ করেছেন তেহরিকে ইনসাফের চেয়ারম্যান ইমরান খান। এর মাধ্যমে তার স্ত্রী বুশরা বিবি হন পাকিস্তানের ফার্স্ট লেডি। তার প্রথম সাক্ষাৎকারে পাকিস্তানের জনগণ উদ্বেলিত হয়েছেন।

সাক্ষাৎকারে পাকিস্তানের জনসাধারনের মন জয় করে নিয়েছেন তিনি। বিবিসিতে দেয়া তার প্রথম সাক্ষাৎকারে তিনি বলেন, আমি বিয়ের আগে অনাথ, এতিম ও গরিবদের কাছে যাতায়াত করতাম। কিন্তু বিয়ের পর অামাকে মন্ত্রী মর্যাদার মানুষ বানানো হয়েছে।

এখন আমি সরকারি প্রতিষ্ঠানগুলিতে যাই। মানুষের জন্য যথাসাধ্য উপকার করার চেষ্টা করি। তিনি বলেন, আমি রাজপ্রাসাদে থাকলেও আমার হৃদয় অনাথ, গরিব ও এতিমদের ঘর-বাড়ি আর তাদের অসহাত্বের দিকে পরে থাকে।

আমি খুব কাছ থেকে তাদের দুঃখভরা জীবন দেখেছি। তাই আমি তাদের জন্য কিছু করতে চাই। সবসময় তাদের খোঁজ খবর নেয়ার চেষ্টা করি।

বিশেষ করে আমার দেশের নারী এতিম অার অনাথদের জন্য কোনো ব্যবস্থা নেই, তাদের জন্য কেউ কিছু করে না। তাছাড়া যারা বৃদ্ধা তারাও মানবেতর জীবন যাপন করে। তাদের জীবন খুবই কষ্টের। আমাদের সমাজ তাদের জন্য কিছুই করছে না। আমি চেষ্টা করছি এমন অসহায়দের জন্য কিছু করতে।

ওল্ড হাউসে বৃদ্ধদের সাথে প্রশাসন ভালো আচরণ করে না। তাদের অবস্থাও ভালোভাবে পর্যবেক্ষণ করা হয় না। আমি এগুলো খুব গুরুত্বের সঙ্গে দেখবাল করার চিন্তা করছি।

ভবিষ্যতে তার চিন্তাভাবনা ও পরিকল্পনা সম্পর্কে জিজ্ঞেস করলে তিনি বলেন, আমি সামাজিক কর্মকাণ্ডে জড়িত হতে চাই, সমাজে যারা নির্দোষ, অনাথ, এতিম, বৃদ্ধ ও অক্ষম এমন মানুষদের জন্য কাজ করতে চাই। আমি কাজ করছি। আর একাজগুলো করতে পেরে আমি মহাখুশি।

কওমি মাদরাসা ম্যানেজমেন্ট সফটওয়্যার – বিস্তারিত জানুন

এ কাজের জন্য আল্লাহর কাছেও আমি বড় প্রতিদান পাবো বলে আশা করছি। তিনি জনগণকে অনুরোধ করে বলেন, এ সমাজে বেশিরভাগ নিষ্ঠুরতা হচ্ছে গরিব আর দুর্বলদের ওপর। আপনাদের কাছে আমার অনুরোধ যদি আপনারা সমাজে কোনো অবিচার নির্যাতন দেখেন সঙ্গে সঙ্গে আমাদের জানাবেন।

সাক্ষাৎকারে বুশরা বিবি  আরও বলেন, আমি যে প্রতিষ্ঠানগুলিতে পরিদর্শনের জন্য গিয়েছি সেগুলোর সমস্যা সমাধানে সরকারের কাছে আবেদন করেছি। সরকার সমস্যা সমাধানে এগিয়েএসেছে। আমি আরো অনেকগুলো প্রতিষ্ঠান পরিদর্শ করবো। ওই প্রতিষ্ঠানগুলোরও কোনো সমস্যা থাকলে সামাধানের চেষ্টা করবো।

সম্প্রতি বিবিসিকে দেয়া প্রথম সাক্ষাৎকারে তিনি বিয়ের বিষয়েও নানান কথা বলেন। এ সাক্ষাৎকারের বিষয়বস্তু সামাজিক মিডিয়াতে জনপ্রিয়তা পেয়েছে। টুইটার ও ফেসবুকসহ গণমাধ্যমে হাজারও মানুষ তার প্রতি ভালোবাসা প্রকাশ করেছন।

একজন টুইটার ব্যবহারকারী বলেছেন, বুশরা বিবি পাকিস্তান নারীদের মডেল হিসেবে কাজ করছেন। তিনি মানুষের মন জয় করতে সক্ষম হয়েছেন। তার কাজে পাকিস্তানের জনগণ সন্তুষ্ট।

মারিয়া চৌধুরী নামের ব্যবহারকারী বলেছিলেন, বুশরা বিবি তার সাক্ষাৎকারে একই কাজের কথা বলছিলেন যেমন কথা বলতেন ইমরান খানের স্ত্রী রেহাম খান।

শাহ সাঈদ মাজ বিবিসিকে দেয়া সাক্ষাৎকার সম্পর্কে বলেন,  দরিদ্র, গরিব, দুঃখিদের নিয়ে ইমরান খানের স্ত্রী যে কথা বলেছেন আমরা তার সঙ্গে একমত। আমরা আল্লাহর কাছে পার্থনা করি তিনি যেনো তার কাজে আরো একনিষ্ঠ হোন। এভাবে আরো অনেক প্রতিক্রিয়া এসেছে বুশরা বিবির সাক্ষাৎকার নিয়ে।

উল্লেখ্য, পাকিস্তানের বিশ্বকাপজয়ী অধিনায়ক ও বর্তমানে দেশটির প্রেসিডেন্ট ইমরান খান তৃতীয়বারের মতো বিবাহবন্ধনে আবদ্ধ হয়েছিলেন বুশরা বিবির সঙ্গে। চলতি বছরের ফেব্রুয়ারিতে তাদের বিয়ে হয়েছিলো লাহোরে।

সূত্র: উর্দু পয়েন্ট