২০১৮-১০-১০

শুক্রবার, ১৯ অক্টোবর ২০১৮

অনুমতি ছাড়া স্বামীর মোবাইল দেখায় স্ত্রীর কারাদণ্ড

OURISLAM24.COM
news-image

আবদুল্লাহ তামিম: অনুমতি ছাড়া স্বামীর মোবাইল দেখার অপরাধে স্ত্রীকে তিন মাসের কারাদণ্ড দিয়েছে আমিরাতের একটি আদালত।

জানা যায়, স্বামী ঘুমিয়ে যাওয়ার পর ওই স্ত্রী স্বামীর মোবাইলের কল হিস্টোরি যাচাই করছিলেন। এ নিয়ে আদালতে মামলা ঠুকেছিলেন স্বামী।

আল-আরাবিয়া বলছে, হোসেন রাসা খামিমা নামের সে নারী আদালতে বলেছেন, তিনি তার স্বামীর ফোন তার সন্তানদের খোঁজ নিতে ব্যবহার করেছেন।

তিনি এটাও বলেন তার স্বামী অন্য নারী সাথে যোগাযোগ করে। তাই তিনি সেটা যাচাই করার জন্য তার ফোন অনুমতি ছাড়া ধরেছেন।

প্রাণবন্ত নামাজ

এর আগে ওই মহিলার স্বামী আদালতে তার ফোন অনুমতি ছাড়া ব্যবহার ও হস্তক্ষেপের জন্য একটি মামলা দায়ের করেছিলেন। সেটি জাতীয়ভাবে কঠোর একটি আইনের অধীনে শুনানির জন্য গৃহীত হয়েছিল।

এর পরবর্তি প্রতিবেদনে বলা হয়, এ আইনের আওতায় একে অপরের সন্দেহে সত্ত্বেও, অন্য পক্ষের অনুমতি ছাড়া কেউ কারো ফোন ব্যবহার করতে পারবে না ও ধরতে পারবে না।

ওই মামলার শুনানির পর সোশ্যাল মিডিয়ায় কঠিন বিতর্ক তৈরি হয়েছিলো। কেউ আইন ভঙ্গ করে স্বামীর ফোন ব্যবহার করায় স্ত্রীকে অভিযুক্ত করেছে, কেউ কেউ তার স্বামীকে অন্য নারীর সাথে কথা বলার জন্য জঘন্য বলে অভিযুক্ত করেছে।

তবে অধিকাংশই মনে করে স্ত্রী চেক করে থাকলেও এ অপরাধে তাকে কারাদণ্ড দেয়া উচিত হয়নি।

সূত্র: ডেইলি পাকিস্তান

[মালিবাগে চালু হয়েছে অত্যাধুনিক হিজামা সেন্টার। নবীজি সা. নির্দেশিত এ চিকিৎসা পদ্ধতি গ্রহণ করে সুস্থ থাকুন। হার্টের রোগ, কিডনির, লিভারের ও স্ট্রোকসহ শরীরের বাত ব্যথার জন্য খুবই উপকারী হিজামা: যোগাযোগ ০১৮৫৮১৪১৮৪৬]