২০১৮-০৮-১৬

বৃহস্পতিবার, ২২ নভেম্বর ২০১৮

নিয়ন্ত্রণে গজনি; এবার কাবুল দখলের টার্গেটে তালেবান

OURISLAM24.COM
news-image

হামিম আরিফ: গেল কয়েকদিন ধরে আফগানিস্তানের বিভিন্ন শহর বিশেষ করে গজনিতে যুদ্ধ চালাচ্ছে তালেবান। এতে কয়েকশ নিরাপত্তাকর্মী নিহতের খবরও পাওয়া গেছে আন্তর্জাতিক গণমাধ্যমে।বিভিন্ন সেনাঘাটিতেও হামলা চালিয়েছে তালেবান যোদ্ধারা।

এবার রাজধানী কাবুল দখলে নেয়ার টার্গেট করছে তালেবান। গজনি থেকে যার অবস্থান মাত্র দুই ঘণ্টার দূরত্বে।

তালেবানদের আক্রমণ ইতিহাসে এই প্রথম কাবুলের খুব কাছাকাছি ঘাঁটি গাড়ার চেষ্টা করছে তারা।

বিশেষজ্ঞরা বলছেন, গজনি আক্রমণের আসল কারণ অন্য কিছু। মূলত কাবুল দখলের টার্গেট নিয়েই নতুন করে গজনি দখলের লড়াইয়ে নেমেছে সরকারবিরোধী এ গোষ্ঠি।

চলতি সপ্তাহের শুরুতে গজনি শহর দখলের লক্ষ্যে হামলা চালায় তালেবান। হামলার পর থেকেই তালেবান ও সরকারি বাহিনীর মধ্যে প্রচণ্ড লড়াই চলছে। লড়াইয়ে সরকারি বাহিনী মার্কিন বিমান বাহিনীর সহায়তা পেলেও স্থলে সম্মুখ যুদ্ধে তালেবানরাই এগিয়ে।

গত চারদিনে ৩ শতাধিক আফগান সেনা-পুলিশকে হত্যা করেছে তারা। ছাড় দিচ্ছে না মার্কিন সেনাকেও। ইতোমধ্যে গজনি শহর নিয়ন্ত্রণে চলে এসেছে বলে দাবি করেছে তালেবানরা।

সামরিক কৌশলগত দিক থেকে গজনি খুবই গুরুত্বপূর্ণ শহর। কাবুল-কান্দাহার মহাসড়কের পাশেই এর অবস্থান। এখান থেকে কাবুল শহরের দূরত্ব ১০০ কিলোমিটারের চেয়েও কম।

ব্যবসার চিন্তা, হিসাবের জটিলতা? ক্লিক করুন

গজনির অধিবাসীরা জানিয়েছেন, তালেবানরা শহর ঘিরে ফেলেছে। শহরের বিভিন্ন সড়কের নিয়ন্ত্রণ নিয়ে টহল দিচ্ছে তারা। কিছু এলাকায় তারা অধিবাসীদের কাছ থেকে কর আদায়ও শুরু করেছে।

Image result for taliban win in ghazni

গজনি দখলের লড়াইয়ের মধ্যেই রোববার দেশের উত্তরাঞ্চলের প্রদেশ ফারিয়াব হামলা চালায় তালেবান। ফারিয়াবে এ অঞ্চলে আফগান সেনাবাহিনীর একটি গুরুত্বপূর্ণ ঘাঁটির নিয়ন্ত্রণও নিয়েছে তারা।

আফগান গোয়েন্দা সংস্থার সাবেক প্রধান রহমতুল্লাহ নাবিল বলেন, তালেবানদের গজনি নিয়ন্ত্রণ মানে তারা সহজে কাবুল ঘিরে ফেলতে সক্ষম হবে। এই মুহূর্তে আফগানিস্তানের ৭০ শতাংশ এলাকায় কর্মকাণ্ড চালাচ্ছে তালেবানরা।

বিবিসি জানিয়েছে, দেশের মাত্র ৩০ শতাংশ আফগান সরকারের পূর্ণ নিয়ন্ত্রণে রয়েছে। অন্যদিকে ৪ শতাংশ এলাকার পূর্ণ নিয়ন্ত্রণ করছে তালেবান।

উল্লেখ্য, ২০০১ সালের নাইন ইলেভেন হামলার পর তালেবানকে অভিযুক্ত করে আফগানিস্তানে আগ্রাসন চালায় যুক্তরাষ্ট্র। এই আগ্রাসনের ফলে ক্ষমতা হারায় তালেবান। তখন থেকেই দেশটিতে মার্কিন তাবেদারি সরকার বসে। কিন্তু তালেবানকে ক্ষমতাচ্যুত করা গেলেও তাদের নির্মূল করতে পারেনি যুক্তরাষ্ট্রসহ পশ্চিমা বিশ্ব।

বাঘলান সেনাঘাটিতে তালেবান হামলা; নিহত ৪৫ সেনা

-আরআর