২০১৮-০৮-১৪

সোমবার, ২৪ সেপ্টেম্বর ২০১৮

ফিরোজ আল মামুনের ছড়া

OURISLAM24.COM
news-image

কুরবানির বার্তা
ফিরোজ আল-মামুন

আমাদের গাঁয়ে আছে, মর্জিনা খালা
ভালো নেই ঘরবাড়ি, খাবারের থালা।

কষ্টের মাঝে তবু, ছাগলের পাল
নিজে এনে ঘাস দেয়, ধরে তার হাল।

বছর ঘুরে যবে, আসে কুরবানি
প্রস্তুত রাখে তিনি, নিজ ছাগখানি।

চোখের অশ্রু নিয়ে, বিতরণী পায়
গোশত ভাগ করে, যেদিকেই যায়।

পৃথিবীর উল্লাস, সব তার মাঝে
কুরবানি তার চলে, তার দেওয়া সাজে।

এইদিকে কুদ্দুস, ব্যাংক কারবারি
অঢেল জমি আছে, বড় বড় বাড়ি।

ঈদ এলে মার্কেটে, ছুটে যায় সব
সবচেয়ে বড় গরু, দেখে তিনি খব।

গর্বে বুক ফুলে বেড়ে যায় দেড়
আয়োজন বড় এক, সবে পায় টের।

ঈদের মাঠে তিনি, বড় বড় হাকে
নামকরা কসাইকে, নিজ ভাগে ডাকে।

আগেই বলে রাখে, গোশতের কথা
একটু কেউ পেলে, দুঃখের ব্যথা।

জায়গা অনেক আছে, ফ্রিজ বড় বড়
যেন পায় সব গোশত, একসাথে জড়ো।

হয় যদি বেশি কভু, ডেকো মিসকিন
সাথে থেকে বাজিও, দয়ালুর বীণ।

এই কি কুরবানি, খোদা নিবে মেনে
কেনইবা করে তারা, সবে তবে জানে।

তবুও বলছি আমি, ছড়া ভাষা দিয়ে
কুরবানি হতে হবে, সন্তুষ নিয়ে

খোদা যেন খুশি হয়, তোমার ত্যাগে
জেনে রেখো সুখ নেই, একাএকা ভোগে।

এক কবিতার কারণে পাঁচ বছর জেল

-আরআর