২০১৮-০৭-২২

বুধবার, ১৯ সেপ্টেম্বর ২০১৮

কৃষকরা ন্যায্যমূল্য পেলে উৎপাদনে আগ্রহী হবে: রাষ্ট্রপতি

OURISLAM24.COM
news-image

আওয়ার ইসলাম: কৃষির সাফল্যকে অব্যাহত রাখতে উৎপাদন বৃদ্ধির পাশাপাশি কৃষক অর্থাৎ উৎপাদনকারী পর্যায়ে ন্যায্যমূল্য প্রাপ্তি নিশ্চিত করতে হবে বলে মন্তব্য করেছেন রাষ্ট্রপতি মোঃ আবদুল হামিদ।

রোববার দুপুরে বাংলাদেশ কৃষি বিশ্ববিদ্যালয়ের ৫৭তম প্রতিষ্ঠা বার্ষিকী উদযাপন অনুষ্ঠানে এই মন্তব্য করেন তিনি।

আবদুল হামিদ বলেন, দীর্ঘমেয়াদি উন্নয়নের জন্য কৃষি ও কৃষকের উন্নয়ন অপরিহার্য। কারণ বাংলাদেশের অর্থনৈতিক প্রবৃদ্ধি অর্জন ও স্থিতিশীলতা সংরক্ষণে কৃষির ভূমিকা আজও মুখ্য। কৃষকরা ন্যায্যমূল্য পেলে উৎপাদনে আগ্রহী হবে।

তিনি বলেন, হাওর এলাকার কৃষকদের বছরে একটি মাত্র ফসল বোরোর ওপর নির্ভর করতে হয়। কিন্তু অনেক সময় বন্যার কারণে এই ফসল নষ্ট হয়ে যায়। এটা হাওরবাসীদের পাশাপাশি দেশের সার্বিক অর্থনীতিতে বিরূপ প্রভাব ফেলে। তাই দুর্যোগ সহনশীল ফসলের জাত উদ্ভাবনে টেকসই কৌশল নির্ধারণ করতে হবে।

রাষ্ট্রপতি বলেন, জলবায়ু পরিবর্তনের বিরূপ প্রভাব বর্তমানের এক বাস্তবতা। এজন্য কৃষিতে আমাদের অর্জিত সাফল্য ধরে রাখার পাশাপাশি একে এগিয়ে নিতে হলে জলবায়ু পরিবর্তনে সৃষ্ট সমস্যা সমাধানে সর্বোচ্চ অগ্রাধিকার দিতে হবে।

তিনি বলেন, আমাদের দেশে মৌসুমি ফল ও কৃষিপণ্য সংরক্ষণের অভাবে নষ্ট হয়ে যায়। এসব পণ্য সংরক্ষণ ও প্রক্রিয়াজাতকরণে সরকারের পাশাপাশি সংশ্লিষ্ট সকলকে এগিয়ে আসতে হবে।

এসময় আরও উপস্থিত ছিলেন ধর্ম বিষয়কমন্ত্রী অধ্যক্ষ মতিউর রহমান, বিশ্ববিদ্যালয়ের উপাচার্য অধ্যাপক ড. মো. আলী আকবর, সাবেক উপাচার্য অধ্যাপক ড. এম সাত্তার মন্ডল, অ্যালামনাই অ্যাসোসিয়েশনের সভাপতি ড. মো. আবদুর রাজ্জাক ও অ্যালামনাই অ্যাসোসিয়েশনের সাধারণ সম্পাদক কৃষিবিদ আবদুল মান্নান।

আরও পড়ুন: ইসলাম ও দেশের জন্য জীবন দিতে প্রস্তুত আছি: মাহমুদুর রহমান