২০১৮-০৬-০৮

বৃহস্পতিবার, ১৮ অক্টোবর ২০১৮

সংস্কৃতিকর্মী মাওলানা মাহফুজকে বাঁচাতে এগিয়ে আসুন

OURISLAM24.COM
news-image

মুমিন রহমান: মাওলানা মাহফুজুর রহমান একজন সংস্কৃতিকর্মী। আবৃত্তি ছিল তার নেশা। মাদরাসার শিক্ষার্থীদের জন্য তিনি নানা সময়ে আয়োজন করতেন আবৃত্তি কোর্স। হঠাৎ করে সবকিছুই বন্ধ হয়ে গেছে।

গত ২ মার্চ পল্টনের একটি রেকর্ড হাউস থেকে বেরুনোর পর হঠাৎ করেই মাথা ঘুরে পড়ে যান রাস্তায়। ধরাধরি করে লোকজন তাকে নিয়ে ইসলামী ব্যাংক হাসপাতালে ভর্তি করেন।

প্রাথমিক চিকিৎসার পর জানা যায় তার ব্রেনস্ট্রোক করেছে। একই সঙ্গে হাত পা’ও অবশ।

সেই মার্চের পর বর্তমানে তিনি কিছুটা সুস্থ। কিন্তু চলতে পারেন না। কারণ তার এক পা একেবারেই কাজ করে না। শরীরে বল নেই। স্ট্রোকের ফলে কোনো কিছু মনেও রাখতে পারেন না।

ইসলামী ব্যাংক হাসপাতালে নিউরো বিশেষজ্ঞ রেজাউর রহমানের অধীনে চিকিৎসা করাচ্ছেন মাহফুজুর রহমান। ডাক্তার বলেছেন বেশ কয়েক বছর সময় লাগবে তার পূর্ণ সেরে উঠতে। আর এ সময়ে খরচ হবে ২২ লাখ টাকা।

মাহফুজুর রহমান থাকেন ঢাকার খিলগাঁওয়ে। বাড়ি বরিশাল। আর্থিক অবস্থা মোটেও ভালো নয়। যে কারণে বিশাল এ খরচ বহন করা তার পক্ষে একেবারেই সম্ভব নয়। ফলে সমাজের বিত্তবানদের দিকে তাকাতে হচ্ছে তাকে।

মাহফুজুর রহমান ২০১১ সালে চৌধুরীপাড়া মাদরাসা থেকে দাওরা পড়ার পর মিরপুরের এক মাদরাসায় ইফতা পড়েন। তারপর আবৃত্তি নিয়ে কাজ করতেন। কিছুদিন আগে বিয়ে করেছেন। ঘরে ছোট্ট এক সন্তানও রয়েছে।

হাত পা অবশ হয়ে পড়ে থাকা মাহফুজের সংসার খরচ পূরণ করতেই পরিবারের উপর ভরসা করতে হচ্ছে সেখানে বাড়তি চিকিৎসা খরচ বের করা অসম্ভব হয়ে পড়েছে। আর এ কারণে না চাইলেও সমাজের বিত্তবানদের দিকে তাকাতে হচ্ছে তাকে।

একজন সংস্কৃতি কর্মী মাহফুজ আবার সুস্থ হয়ে উঠুক। তার কণ্ঠে আবার বেজে উঠুক সুর আমরা মানে প্রাণে সেটা কামনা করি। আর তাই সমাজের বিত্তবান মানুষদের আহ্বান করছি তার প্রতি সদয় হতে।

যতটুকু সামর্থ রয়েছে তা দিয়ে মাওলানা মাহফুজের পাশে দাঁড়ান। আলেম এ পরিবারটি সুস্থ হযে সমাজে বাঁচুক এটিই সবার প্রত্যাশা। আল্লাহ সহায় হোন।

রোগীর ব্যাপারে জানতে: ০১৮৪১ ৩৭৫২৯৯
বিকাশ নাম্বার: ০১৭১৭ ৮৩১৯৩৭ (পার্সোনাল)
রকেট নাম্বার: ০১৭১৭ ৮৩১৯৩৭-৭ (পার্সোনাল)

ব্যাংক অ্যাকাউন্ট নাম্বার
ourislam24.com
exim bank head office
corporat branch
a/c no. 03911100214688

ছোট-বড় যে কোনো রকম অংক পাঠাতে পারেন বিকাশ বা অ্যাকাউন্ট নাম্বারে। দ্রুত পৌঁছে যাবে মাওলানা মাহফুজের কাছে।