রবিবার, ২৪ জুন ২০১৮

ব্যবহারিক খাতায় স্বাক্ষর দিতে গিয়ে ধর্ষণের শিকার ছাত্রী

OURISLAM24.COM
ফেব্রুয়ারি ২৩, ২০১৮
news-image

আওয়ার ইসলাম: ব্যবহারিক খাতায় স্বাক্ষর দিতে গিয়ে লালমনিরহাটের আদিতমারী উপজেলায় ধর্ষণের শিকার হয়েছেন নার্সিং ইনস্টিটিউটের এক ছাত্রী।

গেলো ৫ ফেব্রুয়ারি ওই নার্সিং ইনস্টিটিউটের পরিচালকের বাসভবনে এই ঘটনা ঘটে।
এ ঘটনায় গতকাল বৃহস্পতিবার বিকেলে ওই প্রতিষ্ঠানের পরিচালক আসাদুজ্জামান আসাদকে (৩৬) গ্রেপ্তারের পর আজ শুক্রবার তাকে জেলহাজতে পাঠানো হয়েছে। গ্রেপ্তার আসাদুজ্জামান ওই এলাকার অ্যাডভোকেট শামছুল আলমের ছেলে।

জানা গেছে, অ্যাডভোকেট শামছুল আলম আদিতমারী উপজেলার খাতাপাড়া মানসিকা মেডিকেল ইনস্টিটিউট-এর প্রতিষ্ঠাতা। সে সুবাদে প্রতিষ্ঠানটির পরিচালকের দায়িত্ব পালন করছেন তার ছেলে আসাদুজ্জামান।

আদিতমারী থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) হরেশ্বর রায় জানান, গেলো ৫ ফেব্রুয়ারি ব্যবহারিক খাতায় স্বাক্ষর নেওয়ার জন্য এক শিক্ষার্থী পরিচালক আসাদুজ্জামানের বাসভবনে গেলে তাকে ধর্ষণ করেন তিনি। পরে বিষয়টি ধামাচাপা দেয়ার জন্য পরীক্ষায় নম্বর কম দেয়াসহ ওই ছাত্রীকে প্রাণনাশের হুমকি দেন পরিচালক।

পরে গতকাল বৃহস্পতিবার সকালে ওই শিক্ষার্থী আদিতমারী থানায় একটি লিখিত অভিযোগ করেন। অভিযোগের প্রেক্ষিতে পুলিশ পরিচালক আসাদুজ্জামানকে গ্রেপ্তার করে শুক্রবার ভোরে জেলহাজতে পাঠান।

এইচজে