রবিবার, ২৪ জুন ২০১৮

পরকীয়ার সন্দেহে স্বামীর যৌনাঙ্গ কেটে দিলেন স্ত্রী

OURISLAM24.COM
ফেব্রুয়ারি ২৩, ২০১৮
news-image

আওয়ার ইসলাম: স্বামী বিবাহবহির্ভূত সম্পর্কে জড়িত, এমনটাই সন্দেহ হত স্ত্রীর। তারই ‘শাস্তি’ দিতে কেটে ফেলে দিলেন স্বামীর যৌনাঙ্গ।

পঞ্জাবের জলন্ধরে, যোগীন্দর নগরে ঘটে যাওয়া এই ঘটনায় রীতিমতো তাজ্জব গোটা পুলিশ প্রশাসন। ঘটনাটি ঘটেছে গত মঙ্গলবার। আশঙ্কাজনক অবস্থায় আজাদ সিংহ নামে ওই ব্যক্তির চিকিৎসা চলছে স্থানীয় হাসপাতালে।

পুলিশ সূত্রে খবর, আজাদের স্ত্রী সুখবন্ত কউর সন্দেহ করতেন— তাঁর স্বামী কোনও অবৈধ সম্পর্কে জড়িত। এই নিয়ে প্রায়শই তাঁদের মধ্যে বচসা চলত। ঘটনার দিন আজাদ যখন ঘুমাচ্ছিলেন, সুখবন্ত প্রথমে তাঁর মাথায় লোহার রড দিয়ে আঘাত করেন। অজ্ঞান হয়ে যান আজাদ।

সেই সময় ছুরি দিয়ে স্বামীর যৌনাঙ্গ কেটে ফেলেন সুখবন্ত। তার পর সেই কেটে ফেলা যৌনাঙ্গ নিয়ে গিয়ে শৌচালয়ের কমোডে ফেলে দিয়ে ফ্লাশ করে দেন তিনি। রক্তাক্ত অবস্থায় আজাদকে তুলে নিয়ে গিয়ে হাসপাতালে ভর্তি করেন প্রতিবেশীরা। পুলিশ জানিয়েছে, ওই দম্পতির দু’টি সন্তানও রয়েছে।

 

ঘটনার পূর্ণাঙ্গ তদন্ত দাবি করে পুলিশের কাছে অভিযোগ দায়ের করেছেন আজাদের বাবা। সেই অভিযোগের ভিত্তিতে সুখবন্তের বিরুদ্ধে মামলা দায়ের করেছে পুলিশ।

ভারতের জলন্ধর পুলিশের অ্যাসিন্ট্যান্ট কমিশনার সাতিন্দর কুমারের কথায়, ‘‘সুখবন্ত মনে করতেন, অন্য কোনও মহিলার সঙ্গে তাঁর স্বামী আজাদের সম্পর্ক রয়েছে। তাই সন্দেহেই, রাগের বশে এই ভয়ানক কাণ্ড ঘটিয়েছেন তিনি।’’

এইচজে