বুধবার, ২০ জুন ২০১৮

ছাত্র রাজনীতি উম্মাহর মূলে অনৈক্যের বীজ রোপণ করছে!

OURISLAM24.COM
জানুয়ারি ৮, ২০১৮
news-image

খতিব তাজুল ইসলাম
আলেম ও সংগঠক

নতুন প্রজন্মরা বেআদব হয়, অপর দলের গুরুজনের খারাপ ভাবতে শুরু করে। তুচ্ছ তাচ্ছিল্য রূপে অন্যকে দেখে। উম্মাহর মূলে অনৈক্যের বীজ শক্তভাবে রূপিত হয়। দেশ জাতি ধর্ম ও উম্মাহর বদলে দলের গোলামে পরিণত হয়।

তাই ছাত্র বয়সে তাদের এসব থেকে দূরে রাখা খুব জরুরি। নেতৃত্ব দিতে হলে প্রখর মেধা ও যোগ্যতার প্রয়োজন। কঠিন স্টাডির মাধ্যমে আগে নিজেকে পুরোপুরি প্রস্তুত করতে হবে।

ছাত্রত্ব থেকে যখন দল করা শুরু করে বা রাজনীতি করে তখন সীমিত একটি গোষ্ঠীর প্রতি তার দুর্বলতা সৃষ্টি হয়ে যায়। যে কারণে বৃহত্তর পরিসরে কাজ করার সকল দরজা জানালা হয় রুদ্ধ।

অতএব মেধার বিকাশ আগে হওয়া দরকার। দলকানা হবে পরে। দলের পুঁজারি না বানিয়ে আল্লাহর পুঁজারি হোক।

রাজনীতি করা যাবে না এমন বোকার স্বর্গে বাস করি না। কিন্তু করতে হবে করার মত। ময়দানে তিহের মত ঘুরাঘুরি করে লাভ নেই। ঘুরতে হবে কক্ষপথ ধরে আপন বলয়ের সামগ্রিক ইন্টারেস্ট নিয়ে।

শুধু মিছিলের লোক তৈরি না করে বিভিন্ন সেক্টরের লোক তৈরি করে পাঠান। বহুমুখী কর্মসুচিই একটি সফল রাজনীতির অগ্রসরতার প্রমাণ বহন করে।

মোটকথা শিশুর কাছে যৌবনের গান কিংবা প্রেমিক প্রেমিকার গান গেয়ে কোন লাভ হবে না। লাভ হবে তখন যখন তারা ম্যাচিউর্ড হবে।

আসুন রাজনীতির বয়স হওয়ার আগে রাজনীতিকে ছাত্র জীবনে না বলি। উপযুক্ত জীবনে আমি রাজনীতির উপযোগী হলে মনে প্রাণে তা করি।

লেখকের ফেসবুক টাইমলাইন থেকে