২০১৭-১০-২১

শনিবার, ২০ অক্টোবর ২০১৮

নিজেকে পরবর্তী বুদ্ধ দাবি; শত শত কিশোরীর সঙ্গে যৌন সম্পর্ক

OURISLAM24.COM
news-image

আওয়ার ইসলাম : নিজেকে পরবর্তী বুদ্ধ দাবি করে ‘খুন তান’। আর এমন দাবি করে যুবতীদের সঙ্গে শারীরিক সম্পর্ক গড়ে তোলে সে। কয়েক শত কিশোরীর কুমারিত্ব নষ্ট করেছে সে। বিনিময়ে তাদের ভাগ্য সুপ্রসন্ন হবে এমন ধারণা দেয়া হয়েছে। অভিভাবকরাও রীতি অনুযায়ী তাতে অনুমোদন দিয়েছেন।

এ অভিযোগে মিয়ানমারের মন রাজ্য সরকার খুন তানের বিরুদ্ধে গ্রেপ্তারি পরোয়ানা জারি করেছে।রাজ্যের মুখ্যমন্ত্রী ড. আয়ে জান দ্য ইরাবতীকে এতথ্য নিশ্চিত করেছেন।

তিনি বলেন, বৌদ্ধ ধর্মের অবমাননা করার অভিযোগে তার বিরুদ্ধে গ্রেপ্তারি পরোয়ানা জারি করেছি আমরা। তবে খুন তান পালিয়ে গেছে। আমরা তার পাঁচ সহযোগিকে গ্রেপ্তার করতে পেরেছি। দ্য ইরাবতীর রিপোর্টে আরো বলা হয়, জাত লিটে নামেও পরিচিত খুন তান।

ড. আয়ে জান বলেছেন, দু’মাস ধরে খুন তানের ওপর নজর রাখছিল তার সরকার। তার বিরুদ্ধে অপরাধের রেকর্ডও আছে। কিন্তু কেউ মামলা না করায় তার বিরুদ্ধে কোনো আইনগত ব্যবস্থা নেয়া যায় নি। এমন অভিযোগ যুবতীদের কাছ থেকে আসতে হয়। কিন্তু তারা তো এমন অভিযোগ করে নি। তাই আমাদের সরকার এ বিষয়ে হস্তক্ষেপের ক্ষেত্রে জটিলতার মুখোমুখি ছিল।

তবে ২ অক্টোবর মন রাজ্য পার্লামেন্টের নারী ও শিশু অধিকার রক্ষা কমিটির কাছে একটি লিখিত অভিযোগ আসে। তাতে বলা হয়, খুন তান পাঁচজন কিশোরীকে যৌন সঙ্গী করেছে। এদের বয়স ১৬ থেকে ১৮ বছরের মধ্যে। আশপাশের গ্রামের তিনজনকে প্রলুব্ধ করেছে তাকে বিয়ে করতে।

সরকারের একজন মন্ত্রী বলেছেন, স্থানীয়রা খুব কম শিক্ষিত। তারা বিশ্বাস করে যে, খুন তানই হয়তো প্রকৃত বুদ্ধ হতে যাচ্ছে। তাই তার কাছে তাদের কিশোরী মেয়েদের কুমারিত্ব বিলিয়ে দিলে তাদের কপাল খুলে যাবে। কিন্তু এর পিছনে রয়েছে অন্য কারণ।

আরএম