বৃহস্পতিবার, ১৯ জুলাই ২০১৮

মিয়ানমারে গণহত্যা বন্ধে বাংলাদেশকেই নেতৃত্ব দিতে হবে: ইশা ছাত্র আন্দোলন

OURISLAM24.COM
আগস্ট ২৮, ২০১৭
news-image

আওয়ার ইসলাম : ইসলামী শাসনতন্ত্র ছাত্র আন্দোলনের কেন্দ্রীয় সভাপতি জি.এম. রুহুল আমীন ও সেক্রেটারি জেনারেল শেখ মুহাম্মাদ সাইফুল ইসলাম এক যুক্ত বিবৃতিতে বলেছেন, মিয়ানমারের সামরিক বাহিনী আবারো মানবতার বিরুদ্ধে জঘন্য অপরাধে লিপ্ত হয়েছে। রাখাইন রাজ্য মৃত্যুপুরীতে পরিণত হয়েছে।

নেতৃদ্বয় বলেন, জলবায়ু সংকটসহ বৈশ্বিক বিভিন্ন সংকটে বাংলাদেশ যেভাবে নেতৃত্ব দিয়েছে তেমনি মিয়ানমারে রোহিঙ্গা সমস্যা সমাধানে নেতৃত্ব দিতে হবে বাংলাদেশকে।

কারণ বিশ্বের সর্বাধিক রোহিঙ্গা শরনার্থী বাংলাদেশেই আশ্রয় নিয়েছে।যাদের সংখ্যা প্রতিদিন বেড়েই চলছে। অন্যদিকে মিয়ানমারের সামরিক বাহিনী রোহিঙ্গা যোদ্ধাদের ‘বাঙালি সন্ত্রাসী’ আখ্যা দিয়ে চরম ঔদ্বত্য প্রদর্শন করেছে। বিষয়টিকে মিয়ানমারের অভ্যন্তরীণ বিষয় বিবেচনা না করে জাতিসংঘ-ওআইসিসহ বিভিন্ন আন্তর্জাতিক পর্যায়ে উপস্থাপন করে সমস্যা সমাধান করতে হবে বাংলাদেশকেই।

এ সময় নেতৃদ্বয় মানবাধিকার ও আন্তর্জাতিক সংস্থাগুলোর সমালোচনা করে বলেন, গত কয়েকদিনের অব্যাহত সহিংসতায় আবারো প্রায় শতাধিক মানুষ নিহত ও সহস্রাধিক আহত। মানবতাবাদী সংস্থাগুলো এক্ষেত্রে নিরব ভূমিকা পালন করছে। জাতিসংঘ শুধু উদ্বেগ জানিয়ে দায় এড়াতে চাচ্ছে।

বিবৃতিতে তারা মিয়ানমারে অব্যাহত মুসলিম গণহত্যার প্রতিবাদে আগামী ৩০ আগস্ট’১৭ বুধবার, বিকাল ৩টায় বায়তুল মোকাররম উত্তর গেইট থেকে ‘বিক্ষোভ মিছিল’র কর্মসূচি ঘোষণা করেন।