২০১৯-০১-০৮

মঙ্গলবার, ২২ জানুয়ারি ২০১৯

‘আল্লাহ তায়ালা গোটা চিকিৎসাবিদ্যা একটি বাক্যে বর্ণনা করেছেন’

OURISLAM24.COM
news-image

আবদুল্লাহ তামিম

আহারে স্বল্পতা সম্পর্কে ছোট্ট একটি ঘটনা বর্ণিত আছে।বাদশা হারুনুর রশিদের একজন খ্রিস্টান ডাক্তার ছিল।

একদিন সে আলী ইবনে হুসাইন ইবনে ওয়াকিদকে বলল, তােমাদের ধর্মীয় গ্রন্থ কুরআনে চিকিৎসা বিজ্ঞান সম্পর্কে কোনাে কিছু নেই। অথচ জ্ঞান হচ্ছে দু’ধরনের। একটি হচ্ছে শারীরিক বা চিকিৎসা জ্ঞান, অপরটি হলাে ধর্মীয় জ্ঞান ।

তখন আলী ইবনে হুসাইন বললেন, আল্লাহ তায়ালা তাে গােটা চিকিৎসা বিদ্যাকে কুরআনে কারিমের একটি বাক্যের মধ্যে সন্নেবেশিত করে দিয়েছেন।

খ্রিস্টান ডাক্তার জানতে চাইল। কোন সে বাক্য? তিনি বললেন, বাক্যটি হলো  ولاتسرفوا  (অপচয় করাে না)

সুরা আরাফের ৩১ নম্বর আয়াতের একটি বাক্য এটি। আয়াতটি হলো-

يَا بَنِي آدَمَ خُذُوا زِينَتَكُمْ عِندَ كُلِّ مَسْجِدٍ وَكُلُوا وَاشْرَبُوا وَلَا تُسْرِفُوا ۚ إِنَّهُ لَا يُحِبُّ الْمُسْرِفِينَ

এরপর খ্রিস্টান ডাক্তার বলল, তােমাদের নবির পক্ষ থেকে চিকিৎসা বিদ্যা সম্পর্কে কোনাে কিছু বর্ণিত নেই।

আলী ইবনে হুসাইন বললেন, রাসূলুল্লাহ সাল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়া সাল্লাম ও তাে তাঁর একটি মাত্র হাদিসে পূর্ণ চিকিৎসা শাস্ত্রের সমন্বয় ঘটিয়েছেন। ডাক্তার জিজ্ঞাসা করল, সে হাদিসটি কি?

আলী ইবনে হুসাইন রাসুল সা. এর হাদিসটি তাকে শুনালেন,

المعدة بيت الداء والحمية رأس كل دواء وأعط كل بدن ما عودته

‘পাকস্থলী সকল রােগের উৎস, আর প্রতিটি শরীরকে ঐ পরিমাণ। প্রদান করাে যে পরিমাণ তুমি অভ্যস্ত করেছে।

খ্রিস্টান ডাক্তার উত্তর শুনে বলল, তােমাদের কিতাব ও তােমদের নবি জালিনূসের জন্য কোনাে চিকিৎসা শাস্ত্র অবশিষ্ট রাখেননি।

সূত্র: নফহাতুল আরব

এটি