সোমবার, ২৮ মে ২০১৮

জামালপুরে পলিথিন পুড়িয়ে জ্বালানী তৈরীর যন্ত্র আবিষ্কার

OURISLAM24.COM
ফেব্রুয়ারি ২২, ২০১৮
news-image

আওয়ার ইসলাম

পলিথিন পুড়িয়ে পেট্রোল, ডিজেল, কেরোসিন এবং এলপি গ্যাস তৈরীর যন্ত্র আবিষ্কার করে সাড়া জাগিয়েছেন জামালপুরের তরুণ উদ্ভাবক তৌহিদুল ইসলাম তাপস। তাঁর এই বিস্ময়কর আবিষ্কার দেশের সেরা ১০এর প্রথম হওয়ায় প্রধানমন্ত্রীরও দৃষ্টি কেড়েছে। এজন্য প্রধানমন্ত্রী তাকে সাড়ে ৬ লাখ টাকা অনুদানও দিয়েছেন। এই অর্থ দিয়ে তিনি পলিথিন থেকে বাণিজ্যিক ভাবে জ্বালানী তেল ও এলপি গ্যাস তৈরীর জন্য দ্বিতীয় পর্যায়ের কাজ শুরু করেছেন।

জামালপুরের কেন্দুয়া ইউনিয়নের কোজগড়ের মঙ্গলপুর গ্রাম। এই গ্রামের ছেলে তৌহিদুল ইসলাম তাপস। ছোট বেলা থেকেই ইচ্ছে বিজ্ঞানী হবার। তাই আবিষ্কারের নেশায় সব সময় ডুবে থাকত সে।

ধীরে ধীরে তার প্রতিভা তার বয়সের সাথেই বাড়তে থাকে। কলেজে পড়ার সময় পলিথিন পুড়িয়ে বিভিন্ন জ্বালানী দ্রব্য উদ্ভাবনের মাধ্যমে সারা ফেলে তৌহিদুল। শুধুমাত্র তেল কিংবা গ্যাস-ই নয়, এসব জ্বালানী বের হওয়ার পর সেখানে যে মুক্ত কার্বন তৈরি হয়, তা পরে ছাপার কাজে কালি হিসেবেও ব্যবহার করা যায় বলে জানান তরুন এই বিজ্ঞানী তৌহিদুল।

তার এই কৃতিত্বে গর্বিত পরিবার ও স্বজন। তার মা জানান- ছোটবেলায় একটি ফুলের বাগানের পরিত্যক্ত পলিথিন ধ্বংস করার উদ্যোগ নেয়া থেকে তৌহিদুলের চিন্তা শুরু।

কলেজে তাকে সার্বিকভাবে সহযোগিতা করেন তারই শিক্ষক মোহাম্মদ মনিরুজ্জামান মণি। এছাড়াও তৌহিদুলের এই আবিষ্কারকে সফল করে পরিবেশ বান্ধব দেশ গড়ার উদ্যোগটি প্রশংসনীয় বলে জানান, স্থানীয় পরিবেশ কর্মীরা।

তৌহিদুলকে ক্ষুদে বিজ্ঞানী বলে আখ্যায়িত করে তাকে সার্বিক সহযোগিতা করার প্রতিশ্র“তি দেন জামালপুর জেলা প্রশাসক।
যত্রতত্র পড়ে থাকা পলিথিন কুড়িয়ে তাঁর সৎব্যবহারে সবার এগিয়ে আসার আহবান জানিয়েছেন বিশিষ্টজনেরা।