রবিবার, ২৭ মে ২০১৮

মন ভালো রাখার ৭ উপায়

OURISLAM24.COM
ফেব্রুয়ারি ১৪, ২০১৮
news-image

কাউসার লাবীব : আনন্দ, অশ্রু, কান্না, হাসি। জীবন চলার পথে এ শব্দগুলোই তো আমরা খুঁজে পাই।তবে জীবনের মেঠোপথে আমরা আনন্দ ও হাসিকে বড় করে না দেখে অশ্রু আর বেদনাকেই বড় করে দেখি। যার ফলে কখনো কখনো থমকে যায় আমাদের জীবন। হারিয়ে ফেলি স্বাভাবিক জীবন ব্যবস্থা।

জীবন প্রবাহে তো একটু বিষণ্নতা আসবেই। না হলে কী জীবনের প্রকৃত আনন্দ পাবেন? তাই আমাদের উচিৎ জীবনের আনন্দ বাতায়নে মুখ বের করে সজীব পৃথিবী দেখা। দুঃখকে শক্তি আর বেদনাকে পাথেয় হিসেবে গ্রহণ করা।

জীবনে শত দুঃখ পেতে পারেন। তাই বলে মন খারাপ করতে হবে? সবকিছু ঝেড়ে ফেলে আশা আর প্রত্যাশার হিসেব কষে কিছু উপায় মেনে চললে আমরা আমাদের মনকে নিমিষেই করে তুলতে পারি ফুরফুরে। কাজে আনতে পারি স্বাভাবিক গতি।তাই চলুন এবার নিমিষেই মন ভালো করার ৭টি উপায় জেনে আসি-

১. মন ভালো রাখার সবচেয়ে কার্যকারী `ওষুধ` হিসেবে পরিচিত হাসি। শত মন খারাপেও একচিলতে হাসি সব দুঃখ ভুলিয়ে দিতে পারে। গবেষকরা বলছেন, শুধু মন নয়, শরীরকে সুস্থ রাখতেও সাহায্য করে `প্রাণ খুলে হাসি`৷ এছাড়াও এটি রক্তচাপকে নিয়ন্ত্রণে রাখে, রোগ প্রতিরোধ ক্ষমতা বাড়াতে সাহায্য করে।

২. শরীরচর্চাও আপনার মন ভালো রাখতে পারে। শরীরচর্চার ফলে অ্যান্ডরফিন নামক হরমোন নির্গত হয়; যা মন ভাল রাখতে সাহায্য করে। এছাড়া গবেষণায় দেখা গেছে, শরীরচর্চা উদ্বেগ ও মানসিক অবসাদ কমাতেও সাহায্য করে।

৩. সকালে ঘুম থেকে উঠে চায়ের কাপ নিয়ে কয়েক মিনিট রোদে বা জানলার ধারে গিয়ে দাঁড়াতে পারেন। এতে আপনার শরীর পর্যাপ্ত পরিমাণে ভিটামিন `ডি` পাবে। সূর্যালোকে এমন রোগ প্রতিরোধ ক্ষমতা আছে, যা মানসিকভাবে সুস্থ রাখে।

৪. হঠাৎ কোনো কারণে মন খারাপ হলে ইসলামি সঙ্গীত শুনুন।কুরআন তেলাওয়াত করুণ। নিজে কুরআন তেলাওয়াত না করতে পারলে নেট থেকে সার্চ  দিয়ে শুনতে পারেন।

৫. বাসায় থাকা আনন্দ স্মৃতি বিজরিত জিনিসগুলো একটু নেড়েচেড়ে দেখুন।স্মৃতিগুলো মনে করুণ। সেই স্মৃতিতে ভেসে যাওয়ার চেষ্টা করুণ।

৬. নিজের ব্যবহৃত কম্পিউটার , সেলফোনে মন ভালো করে দেওয়ার মতো ছবি স্ক্রিন সেভারে দিয়ে রাখুন।একটু ছবিটির দিকে তাকিয়ে থাকুন।

৭. মন ভালো করতে লিখতে পারেন ডায়েরিতে মজার কোনো স্মৃতি । মেয়েরা হাত রাঙ্গাতে পারেন মেহেদিতে।অথবা প্রিয়জনের জন্য প্রিয় কোনো রেসিপি রান্না করুণ। দেখবেন আপনার মন অনেকটা ফুরফুরে হয়ে উঠেছে।