২০১৮-০১-১২

বুধবার, ২০ ফেব্রুয়ারি ২০১৯

‘নির্বাচনের আগে একটি নির্বাচনকালীন সরকার গঠিত হবে’: প্রধানমন্ত্রী

OURISLAM24.COM
news-image

আওয়ার ইসলাম: সংবিধানের সঙ্গে সঙ্গতি রেখেই ২০১৮ সালের শেষে আগামী জাতীয় সংসদ নির্বাচন অনুষ্ঠিত হবে এবং নির্বাচনের আগে একটি নির্বাচনকালীন সরকার গঠিত হবে। সে সরকার নির্বাচন কমিশনকে সকল প্রকার সহায়তা দেবে।

শুক্রবার জাতির উদ্দেশে দেওয়া ভাষণে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা এসব কথা বলেন ।

প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা তাঁর সরকারের টানা দ্বিতীয় মেয়াদের চার বছরের পূর্তি উপলক্ষে জাতির উদ্দেশে ভাষণ দেন। বার্তা সংস্থা বাসস এসব তথ্য জানায়।

বার্তা সংস্থা বাসস জানায় প্রধানমন্ত্রী দৃঢ় আশাবাদ ব্যক্ত করে বলেন, ‘সকল নিবন্ধিত রাজনৈতিক দল আগামী সাধারণ নির্বাচনে অংশগ্রহণ করে দেশটির গণতান্ত্রিক ধারাবাহিকতা অব্যাহত রাখতে সাহায্য করবে এবং লক্ষ্য করা যাচ্ছে যে, নির্বাচন কমিশন এখন মানুষের আস্থা অর্জন করছে।’

প্রধানমন্ত্রী বলেন, ‘রাষ্ট্রপতি একটি সার্চ কমিটির মাধ্যমে নতুন নির্বাচন কমিশন গঠন করেছেন। এই কমিশনের অধীনে দুটি সিটি করপোরেশন নির্বাচনসহ বিভিন্ন স্থানীয় নির্বাচন অবাধ,সুষ্ঠুও নিরপেক্ষভাবে অনুষ্ঠিত হয়েছে।’

প্রধানমন্ত্রী আগামী নির্বাচন বানচালের ষড়যন্ত্র সম্পর্কে জনগণকে সতর্ক করে দিয়ে বলেন, ‘একটি স্বার্থান্বেষী মহল নির্বাচনের আগে বিশৃঙ্খল পরিস্থিতির সৃষ্টি করতে পারে, তাই জনগণকে সতর্ক থাকতে হবে’।

তিনি বলেন, ‘দেশের মানুষ শান্তি চায়। তারা নির্বাচন বানচালের কোন পদক্ষেপ এবং আন্দোলনের নামে জনগণের সম্পত্তি ধ্বংস করা বরদাশত করবে না।’

প্রধানমন্ত্রী বলেছেন, ‘বর্তমান সরকার অতীতের সফলতা এবং ব্যর্থতার মূল্যায়ন করে সামনের দিকে এগিয়ে যাবে।’

প্রধানমন্ত্রী বলেন, ‘আমরা অতীতকে আঁকড়ে ধরে রাখতে চাই না, তবে এটা ভুলে গেলেও আমাদের চলবে না। আমাদের অতীতের সাফল্য এবং ব্যর্থতার মূল্যায়ন এবং ভুল-ক্রুটিগুলো সংশোধন করেই এগিয়ে যেতে হবে’।

এসএস/