মঙ্গলবার, ২১ নভেম্বর ২০১৭

ads

‘বন্যা দুর্গতদের পাশে দাঁড়ানো মানবিক ও ঈমানি দায়িত্ব’

OURISLAM24.COM
আগস্ট ২৩, ২০১৭
news-image

আওয়ার ইসলাম : বন্যা দুর্গতদের পাশে যার যা কিছু আছে তাই নিয়ে দাঁড়ানো মানবিক ও ঈমানী দায়িত্ব। উত্তরবঙ্গে কোটি কোটি মানুষ পানিবন্দি হয়ে মানবেতর জীবন যাপন করছে। বন্যায় একের পর এক মানুষ মরছে। বহু গবাদী পশু পানিতে ভেসে যাচ্ছে, আরো নতুন নতুন এলাকা প্লাবিত হচ্ছে বলে মন্তব্য করেন, ইসলামী আন্দোলন বাংলাদেশ-এর নায়েবে আমীর মুফতি সৈয়দ মুহাম্মদ ফয়জুল করীম।

তিনি বলেন, এই মুহুর্তে সরকার ও বিরোধী দলগুলোকে রাজনৈতিক ঝগড়া-বিবাদ পরিহার করে বন্যায় ক্ষতিগ্রস্তদের পাশে দাড়াতে হবে। বন্যাকবলিত উত্তরবঙ্গে উদ্ধার তৎপরতা আরো জোরদার করতে হবে। বন্যার্তদের জন্য সরকারের ত্রাণ তৎপরতা আশানুরূপ নয়। ক্ষতিগ্রস্ত মানুষ বাচার জন্য হাহাকার করছে। খবরে প্রকাশ এখনও অনেক মানুষের কাছে সরকারী বেসরকারী ত্রাণ কমিটি পৌছতে পারেনি, যা আসলেই দুঃখজনক। সরকারীভাবে সেনা নিয়ন্ত্রণে ত্রাণ তৎপরতা আরো ব্যাপক করে সর্বত্র ত্রাণ পৌছানোর ব্যবস্থা করতে হবে। সরকারের পাশাপাশি সমাজের বিত্তবান, সেবা সংস্থা ও সংগঠনের সর্বস্তরের নেতাকর্মীদেরকেও এগিয়ে আসার জন্য তিনি সকলের আহ্বান জানান। গতকাল মঙ্গলবার ইসলামী আন্দোলন বাংলাদেশ জামালপুর জেলা শাখার উদ্যোগে বন্যার্তদের মাঝে ত্রাণ বিতরণকালে তিনি এসব কথা বলেন।

তিনি আরো বলেন, বন্যা পরবর্তী সময়ে ক্ষতিগ্রস্ত মানুষের সাহায্যের প্রয়োজন হয় আরো বেশি। সে সময় কাউকে খুঁজে পাওয়া যায় না। এজন্য ইসলামী আন্দোলন বাংলাদেশ বন্যা পরবর্তী সময়েও দুর্গতদের পাশে থাকবে এবং স্বেচ্ছায় শ্রম দিয়ে বাড়ী-ঘর বানানোর কাজে সহযোগিতা অব্যাহত রাখবে। উল্লেখ্য যে, ইসলামী আন্দোলনের ত্রাণ তৎপরতা অব্যাহত রাখতে ১০টি ত্রাণ টিম দুর্গত এলাকায় ত্রাণ বিতরণ অব্যাহত রাখছে।

-এজেড