২০১৬-০৮-০৯

রবিবার, ২০ জানুয়ারি ২০১৯

অনলাইনে কিনুন বিশ্বের সবচেয়ে দামি খেজুর অাজওয়া

OURISLAM24.COM
news-image

khejur2

সিয়াম বিন আহমাদ; আওয়ার ইসলাম

দেশের ডিজিটাল মার্কেট বিস্তৃত হওয়ায় এখন আর সময় নষ্ট করে অনেকেই দোকানে যান না। প্রয়োজনীয় কেনাকাটা সেরে নেন অনলাইনেই। ই-শপগুলোতে ইদানিং প্রয়োজনীয় সব কিছুই পাওয়া যায়। গায়ে পড়ার পোশাক থেকে নিত্য প্রয়োজনীয় আসবাব। কোনো কিছুরই অভাব নেই। অনলাইনে চয়েজ করে অর্ডার করুন। তারপর পৌঁছে যাবে বাসায়। ব্যস, হয়ে গেলো।

কী পাওয়া যায়?
অনলাইন শপগুলো পপুলারিটি পেয়েছে মূলত লাইফস্টাইল, ফ্যাশন, গ্যাজেটসহ নিত্যপ্রয়োজনীয় পণ্যের কল্যাণে। কাস্টমারের আগ্রহও বেশি এইধরনের আইটেমে। তবে এর পাশাপাশি এখন অভিনব ও ব্যতিক্রম পণ্যও পাওয়া যাচ্ছে সহজে। জায়নামাজ, টুপি, হিজাব, কুরআন শরীফ ইত্যাদি আপনি কিনতে পারেন বাসায় বসে। তেমনি এক ক্লিকেই কিনতে পারেন বিভিন্ন দেশের অত্যন্ত পুষ্টিকর ও সুস্বাদু ফল। খেজুর তার মধ্যে অন্যতম। প্রতিটি মানুষের শারীরিক সুস্থতা ও পুষ্টির অবাব পূরণ করতে চিকিৎসকগণ প্রতিদিন খেজুর খাওয়ার নির্দেশ দেন।tin

খেজুর সুমিষ্ট একজাতীয় ফল। বিশেষত আরব ও মরু অঞ্চলে বহু বছর আগ থেকেই এর চাষাবাদ হয়ে আসছে। সুদীর্ঘকাল থেকে বিশ্বের বিভিন্ন প্রান্তে প্রধানতঃ মধ্যপ্রাচ্য ও দক্ষিণ এশিয়ার কিয়দাংশে জনসাধারণের কাছে খেজুর প্রধান উপাদেয় খাদ্য হিসেবে বিবেচিত। তবে, খেজুরের চাষাবাদ কিংবা খেজুর গাছের উৎপত্তি সম্বন্ধে সঠিক কোন তথ্য জানা যায়নি। ধারণা করা হয় যে, পারস্য উপসাগরের তীরবর্তী দেশগুলোয় সর্বপ্রথম এর চাষাবাদ হয়েছিল। সম্ভবতঃ প্রাচীনকাল থেকেই মেসোপটেমিয়া থেকে প্রাগৈতিহাসিক মিশরের অধিবাসীরা খ্রিস্ট-পূর্ব ৪০০০ বছর থেকে এ গাছের গুণাগুন সম্পর্কে অবগত ছিল।

খেজুর খাবারে তৃপ্তি দেয়ার পাশাপাশি শরীরের উপকারও করে। এতে আছে প্রোটিন যা শরীরের জন্য বেশ উপকারী। আছে ভিটামিন আয়রণ, ক্যালিসিয়াম ইত্যাদি।impels

খেজুরের ব্যাপারে হাদিসে এসেছে অমূল্য বাণী। রাসূল সাঃ বলেছেন, যে ব্যক্তি ভোরবেলা সাতটি আজওয়া খেজুর খাবে সেদিন কোন বিষ বা যাদু তার কোন ক্ষতি করতে পারবে না। সহিহ বুখারি, হাদিস নং-৫৩৫৭

কোথায় নক করবেন?
অনলাইনে Impulse.com.bd এবং Halal.com.bd সুস্বাদু এবং মদিনার অরিজিনাল আজওয়াসহ বিভিন্ন দেশের অন্যান্য খেজুর বিক্রি করে থাকে। বাংলাদেশের যে কোনো প্রান্ত থেকে ঘরে বসেই পাচ্ছেন দামি ও বরকতময় খেজুর। এখানে তরতাজা ‘আজওয়া’সহ পাওয়া যায় কুরআনে বর্ণিত বিস্ময়কর গুণসমৃদ্ধ ত্বীন ফল, মরিয়ম খেজুর, ইরানি জাফরান, টার্কিশ এপ্রিকট, আলূু বোখারা ও জাইতুন তেল, রকম বাদামসহ আরো অনেক আইটেম।

মূল্য কেমন?
আজওয়া- প্রতিকেজি= ২৮০০ টাকা
ত্বীন ফল- প্রতিকেজি= ১৮০০ টাকা
এপ্রিকট- প্রতিকেজি= ১৮০০ টাকা
মরিয়ম-প্রতিকেজি= ১২৫০ টাকা।

কতদিনে পাবেন?
অর্ডার দিয়ে খুব বেশিসময় অপেক্ষা করতে হবে না। ঢাকায় বসে পেতে চাইলে মাত্র ২৪ ঘন্টায় আপনার বাসায় পৌছে যাবে এসব পণ্য। আর ঢাকার বাইরে পেতে চাইলে ৪৮ ঘন্টা সময় লাগবে। শপ দুটি বাংলাদেশের যেকোন জেলায় কাঙ্ক্ষিত পণ্য পৌঁছে দেয় কুরিয়ার সার্ভিসের মাধ্যমে। পণ্যমূল্যঅগ্রিম দিতে হয় না। পণ্য বুঝে পাওয়ার পর টাকা দিতে হয়। তবে ঢাকার বাইরে থেকে অর্ডারের ক্ষেত্রে নিশ্চয়তার জন্য ৩০০ টাকা অগ্রিম বিকাশ করতে হয়।

অনলাইন শপ ইমপালস ডটকম ডটবিডি এবং হালাল ডটকম ডটবিডির উদ্যোক্তা মাহফুজুর রহমান। ই-কমার্স বিসনেসে কেন এলেন? জানতে চাইলে তিনি বলেন, আসলে খুব প্ল্যান করে আসা হয়নি। জেদ করে চাকরি ছেড়ে দেয়ার পর প্রায় বছরখানেক যাবৎ কয়েকজন বন্ধু মিলে সময়ে অসময়ে কিছু একটা করবো করবো ভাবছিলাম। কিন্তু করা হচ্ছিল না। একপর্যায়ে তাদের মধ্য থেকে এক বন্ধুর সঙ্গে অনেকটা হুট করেই ই-কমার্স বিসনেসে নেমে পড়া। আলোচনা কম করার কারণেই নামাটা সহজ হয়েছে। তখনো নামার কারণ ইনকাম যতোটা না ছিলো, তার চেয়ে বেশি ছিলো ‌কিছু একটা করার প্রেরণা বা যন্ত্রণা। নতুন কিছু সৃষ্টি করা। নিজেকে ভাংচুর করা। সেটাই করলাম। আর বিশেষত ই-কমার্সকে বেছে নেয়ার কারণ হলো, এখানে নতুন আইডিয়া থ্রো করার স্বাধীনতা তুলনামূলক বেশি।

কিভাবে এলেন? জানতে চাইলে তিনি বলেন, আমার খুব কাছের বন্ধু মুন্না, ওঁর সঙ্গে অন্য একটা প্রজেক্টে কাজ করেছিলাম। সেটাও বলতে গেলে ই-কমার্স। প্রজেক্টে ক্লায়েন্টদের পক্ষ থেকে আশানুরূপ সাড়া পেয়ে ই-কমার্স নিয়ে এগুনোর কথা ভাবলাম। তারপর একদিন সামান্য অালাপের পর হুট করেই শুরু করে দিলাম। নাম ঠিক হলো, একজন চমৎকার একটা লোগো করে দিলো। ব্যস, ইমপালস চলতে শুরু করলো এবং আমাদের প্রত্যাশার চেয়ে বেশি সাড়া পেলো। এখনো পাচ্ছে। তার কিছুদিন পর হালাল ডটকম ডটবিডি স্টার্ট করলাম। সে জন্য আমাদের ক্লায়েন্টদের আন্তরিক অভিনন্দন।

khejur3

ইমপালস ও হালাল ডটকমের ভবিষ্যত প্ল্যান কী? জানতে চাইলে মাহফুজুর রহমান জানান, সত্যি কথা বলতে গেলে, প্ল্যান হলো বিসনেস ছেড়ে দেয়া। শুনতে অন্যরকম লাগলেও সত্যি। বিসনেসটা ঠিক নিজের জন্য ভালো লাগে না। এই টাকা-পয়সা, এই দর-দাম ঠিক আসে না আমার। নিজেকে ব্যবসায়ী না ভেবে শিল্পী ভাবলেই আনন্দ হয়। তবে আপাতত যেহেতু খেয়ে পড়ে বাঁচতে হবে, বাবা-মার জন্য কাজ করতে হবে, তাই বিসনেসটাও করতে হবে। অতএব এটা নিয়ে প্ল্যান না করলেও চলে না। তাই প্রয়োজনের সঙ্গে নিজের রুচিকে মিলিয়ে নিয়ে চেষ্টা করছি একটা লাইফ স্টাইল ব্র্যান্ড ক্রিয়েট করতে। ব্র্যান্ডনেম এ্যারাবিয়ান লাইফ স্টাইল। আলহামদু লিল্লাহ যমুনা ফিউচার পার্কে অলরেডি শোরুম নেয়া হয়েছে। ইনশাল্লাহ এ মাসেই ওপেনিংয়ের চেষ্টা করছি। বাকিটা আল্লাহর ইচ্ছা। এর মাধ্যমে ইমপালস ডটকম ডটবিডি তার আউটলেট যাত্রা শুরু করবে। আল্লাহ যদি সহায় থাকেন, ভবিষ্যতে অনেক কিছুই হতে পারে।

বিঃ দ্রঃ অর্ডার করতে বা বিস্তারিত জানতে ভিজিট করুন Impulse.com.bd অথবা halal.com.bd
সরাসরি জানতে মোবাইল: ০১৯৪২৫৫৯৬০৬

আরআর